Web bengali.cri.cn   
'চিয়াংনান'
  2019-03-18 13:11:04  cri



আজকের অনুষ্ঠানের শুরুতে আমি আপনাদেরকে কন্ঠশিল্পী লিন জুন চিয়ে'র সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেবো। তিনি ১৯৮১ সালের ২৭ মার্চে সিঙ্গাপুরের একটি বাদ্যযন্ত্র পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। বাবা-মা'র তত্ত্বাবধানে তিনি ৪ বছর বয়স থেকে সংগীত শেখা শুরু করেন। ১৯৯৬ সাল থেকে তিনি বিভিন্ন সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় অংশ নেন এবং পুরস্কার লাভ করেন। ১৯৯৯ সালে তিনি একটি প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার মাধ্যমে আনুষ্ঠানিকভাবে সংগীত-জগতে প্রবেশ করেন। প্রথমে শোনাবো তাঁর কন্ঠে 'চিয়াংনান' নামের গান। চিয়াংনান হল চীনের ইয়াংসি নদীর মধ্য ও নিম্ন অববাহিকার দক্ষিণ এলাকার নাম। গানটি ২০০৪ সালে রিলিজ হয়। আশা করি, আপনারা গানটি পছন্দ করবেন।

বন্ধুরা, শুনছিলেন লিন জুন চিয়ে'র কন্ঠে 'চিয়াংনান' শীর্ষক গান। তিনি অনেক বিখ্যাত কণ্ঠশিল্পীর জন্য গান রচনা করেছেন। ২০০৩ সালে তিনি নিজের প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করেন। তার সঙ্গীতে আর এন্ড বি, চীনা বৈশিষ্ট্যময় লোকগান ও আধুনিক পপ গানের শৈলী সংযুক্ত। ২০০৪ সাল থেকে তিনি চীনের মূল ভূভাগে সংগীত নিয়ে কাজ করতে শুরু করেন এবং অনেক সাফল্য লাভ করেন। এর পরের বছরগুলোতে তিনি চীনের মূল ভূভাগ, তাইওয়ান ও হংকং, এমনকি যুক্তরাষ্ট্রের সংগীত প্রতিযোগিতায় পুরস্কার লাভ করেন। সংগীত ছাড়াও তিনি একজন অভিনেতা। তিনি কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'ছোট টোল' নামের গান শোনাবো। চীনের হংকংয়ের নারী কন্ঠশিল্পী ছাই জুও ইয়ান তাঁর সঙ্গে দ্বৈতকণ্ঠে গানটি গেয়েছেন। আশা করি, আপনারা গানটি পছন্দ করবেন।

বন্ধুরা, শুনছিলেন লিন জুন চিয়ে ও ছাই জুও ইয়ান'র কন্ঠে 'ছোট টোল' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'এক হাজার বছর পর' নামের গান শোনাবো। গানটির কথা এমন: 'হৃদয়ের তাল এলোমেলো। স্বপ্নরা পরাধীন। ভালোবাসা হলো একটি আসল প্রতিশ্রুতি। কিন্তু এক হাজার বছর পর কী হবে? আমি ধ্বংসাবশেষে তোমার জন্য অপেক্ষা করি। এক বছর পর এ বিশ্ব আমার থাকবে না। আমি আন্তরিকভাবে তোমার হাত ধরতে পারবো না, তোমার কপাল চুম্বন করতে পারবো না। এক হাজার বছর পর অপেক্ষা করবে না, কারণ তখন সবাই আমাকে ভুলে যাবে। সেই সন্ধ্যায় লাল মরুভূমিতে কে হাজার বছরের নির্জনতা ভেঙ্গে দেবে!'

আচ্ছা, বন্ধুরা, এখন আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন লিন জুন চিয়ে'র কন্ঠে কয়েকটি গান। এখন আমি আপনাদেরকে হংকংয়ের কন্ঠশিল্পী স্যিয়ে থিং ফেংয়ের কন্ঠে 'হলুদ জাতি' নামের গান শোনাবো। তিনি ১৯৮০ সালের ২৯ অগাস্ট মাসে চীনের হংকংয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি একজন কন্ঠশিল্পী, অভিনেতা, সংগীত-প্রযোজক, টিভি হোস্ট ও শিল্পপতি। ১৯৯৫ সালে তিনি জাপানে সংগীত নিয়ে লেখাপড়া করেন। ১৫ বছর বয়সে তিনি প্রথম আনুষ্ঠানিকভাবে সংগীত-জগতে প্রবেশ করেন। ১৯৯৭ থেকে ১৯৯৯ সালের এপ্রিল মাস পর্যন্ত তিনি টানা পাঁচটি অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ১৯৯৯ সালে তিনি প্রথম ম্যানডারিন অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ২০০০ সালে তিনি বিশ্ব ট্যুর কনসার্ট আয়োজন করেন। 'হলুদ জাতি' নামের গান ২০০৫ সালে রিলিজ হয়। আশা করি, আপনারা গানটি পছন্দ করবেন।

বন্ধুরা, শুনছিলেন স্যিয়ে থিং ফেংয়ের কন্ঠে 'হলুদ জাতি' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে কন্ঠশিল্পী হুও জুন'র কন্ঠে 'লাইক এ ড্রিম' নামের গান শোনাবো। তিনি ১৯৯০ সালের ১৮ সেপ্টেম্বরে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ২০১২ সালে সংগীত প্রতিযোগিতায় তৃতীয় স্থান পাওয়ার পর সংগীতজগতে প্রবেশ করেন। ২০১৪ সালে তিনি সিসিটিভি'র সংগীত প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হন। একই বছরে তিনি থিয়ানচিন টিভি কেন্দ্রের সংগীত জগতে চ্যাম্পিয়ন হন। এ বছরে তিনি নিজের প্রথম ইপি প্রকাশ করেন। ২০১৫ সালে তিনি গোল্ডেন মেলডি অ্যাওয়ার্ডের শ্রেষ্ঠ সুরকারের পুরস্কার লাভ করেন। একই বছরের মে মাসে তিনি প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করেন। 'লাইক এ ড্রিম' নামের গান একটি টিভি সিরিজের থিম সং। আশা করি, আপনারা গানটি পছন্দ করবেন।

বন্ধুরা, শুনছিলেন হুও জুন'র কন্ঠে 'লাইক এ ড্রিম' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে হুও জুন'র কন্ঠে 'বসন্ত' নামের গান শোনাবো। আশা করি, আপনারা গানটি পছন্দ করবেন।

প্রিয় শ্রোতা, এতক্ষণ আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের সবাইকে জানাই অসংখ্য ধন্যবাদ। যদি আমাদের অনুষ্ঠানে আপনারা কোনো পছন্দের গান শুনতে চান, তাহলে জানাবেন। আমাদের ই-মেইল ঠিকানা ben@cri.com.cn। আর আমার নিজস্ব ইমেইল ঠিকানা caiyue@cri.com.cn। 'গানের অনুরোধ' আমার নিজস্ব ই-মেইল ঠিকানায় পাঠালে ভালো হয়।

আজ তাহলে এ পর্যন্তই। আশা করি, আগামী সপ্তাহের একই দিন, একই সময়ে আবারো আপনাদের সঙ্গে কথা হবে। সে পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন, আনন্দে থাকুন। চাই চিয়ান। (ছাই/আলিম/সুবর্ণা)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040