Web bengali.cri.cn   
চলতি বছর চীনের হুয়াওয়েই কোম্পানি ২০ কোটিরও বেশি স্মার্টফোন রফতানি করেছে (অর্থ-কড়ি; ২৮ ডিসেম্বর ২০১৮)
  2018-12-29 16:08:15  cri











১. ২০১২ সাল থেকে চীনের সামুদ্রিক অর্থনীতিতে গড়ে ৭.২ শতাংশ হারে প্রবৃদ্ধি অর্জিত হয়ে আসছে। ২০১৭ সালে চীনের সামুদ্রিক অর্থনীতির আকার দাঁড়ায় ৭.৭৬ ট্রিলিয়ন ইউয়ান (১.১২ ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলার)-এ। সম্প্রতি দেশটির জাতীয় গণকংগ্রেসের স্থায়ী কমিটিতে উপস্থাপিত এক প্রতিবেদনে এ তথ্য উল্লেখ করা হয়।

প্রতিবেদন অনুসারে, ২০১৭ সালে চীনের জিডিপি-তে সামুদ্রিক অর্থনীতির অবদান ছিল ৯.৪ শতাংশ। প্রতিবেদনে সামুদ্রিক অর্থনীতির উন্নয়নের পথে বেশকিছু চ্যালেঞ্জের কথাও উল্লেখ করা হয়েছে।

২. চলতি বছর চীনের হুয়াওয়েই কোম্পানি ২০ কোটিরও বেশি স্মার্টফোন রফতানি করেছে, যেটি একটি রেকর্ড। শেনচেনভিত্তিক এই বেসরকারি কোম্পানি সম্প্রতি এ তথ্য জানায়। ২০১০ সালে কোম্পানিটি ৩০ লাখ স্মার্টফোন রফতানি করেছিল। বর্তমানে হুয়াওয়েই বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম স্মার্টফোন কোম্পানি।


৩. পূর্ব চীনের শানতুং প্রদেশে হংকংয়ের বিনিয়োগে প্রতিষ্ঠিত কোম্পানির সংখ্যা ৩,৯৭৮টিতে দাঁড়িয়েছে। শাংহাইয়ের হংকং ইকনোমিক অ্যান্ড ট্রেড অফিস সম্প্রতি এ তথ্য জানায়।

শানতুংয়ে হংকংয়ের প্রকৃত বিনিয়োগ দাঁড়িয়েছে ৪০০০ কোটি মার্কিন ডলারে। ২০১৭ সালে শানতুংয়ের জিডিপি ছিল ৭ ট্রিলিয়ন ইউয়ানের বেশি।

৪. প্রকৃত অর্থনীতিতে অবদান রাখবে—এমন আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে বিশেষ উত্সাহভাতা দেবে চীনের হ্যনান প্রদেশ। এই ভাতার পরিমাণ হবে সর্বোচ্চ ৮০ লাখ ইউয়ান। আর্থিক সংস্কার প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে এই ভাতা দেওয়া হবে। সম্প্রতি প্রদেশের কর্তৃপক্ষ এ তথ্য জানায়।

কর্তৃপক্ষ জানায়, নতুন প্রতিষ্ঠিত বেসরকারি আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে এই উত্সাহভাতা দেওয়া হবে। এর মধ্যে যেসব প্রতিষ্ঠানের বিনিয়োগ ১০০ কোটি ইউয়ান বা এর চেয়ে বেশি হবে, সেসব প্রতিষ্ঠানকে ৮০ লাখ ইউয়ান পর্যন্ত ভাতা দেওয়া হবে। আর যেসব প্রতিষ্ঠানের বিনিয়োগ ১০ কোটি থেকে ১০০ কোটি ইউয়ানের মধ্যে থাকবে, সেসব প্রতিষ্ঠান ভাতা পাবে ৫০ লাখ ইউয়ান পর্যন্ত।

৫. ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারি থেকে এপ্রিল পর্যন্ত মালয়েশিয়ার অর্থনীতিতে প্রবৃদ্ধি অর্জিত হতে পারে। দেশটির পরিসংখ্যান বিভাগ সম্প্রতি এ পূর্বাভাস দিয়েছে।

এদিকে, চলতি বছরের অক্টোবরে দেশটির অর্থনীতিতে ১.২ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জিত হয়।

৬. দক্ষিণ কোরিয়ার পরিবহন মন্ত্রণালয় সম্প্রতি জার্মান গাড়িনির্মাতা কোম্পানি বিএমডাব্লিউকে প্রায় এক কোটি মার্কিন ডলার জরিমানা করেছে। কোম্পানির কোনো কোনো মডেলের গাড়ির যন্ত্রাংশে ত্রুটি থাকায় এই শাস্তি আরোপ করল দক্ষিণ কোরিয়া। দেশটির পরিবহন মন্ত্রণালয়ের অভিযোগ, কোম্পানি এই ত্রুটি গোপন করার চেষ্টা করেছে। সম্প্রতি বিএমডাব্লিউর কয়েকটি গাড়ির ইঞ্জিনে আগুন ধরে গেলে, এই ত্রুটি প্রকাশিত হয়।

৭. ক্যাম্বোডিয়া ২০১৮ সালে ১১২০ কোটি মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য রফতানি করেছে, যা আগের বছরের চেয়ে ৪ শতাংশ বেশি। সম্প্রতি দেশটির বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানায়।

দেশটির বাণিজ্যমন্ত্রী জানান, বিশ্বের ১৪৭টি দেশ ও অঞ্চলে ক্যাম্বোডিয়ার পণ্য রফতানি হয়েছে। কৃষিপণ্য ও শিল্পপণ্যের রফতানি আগের বছরের তুলনায় বেড়েছে বলেও তিনি জানান।

প্রতিবেদন অনুসারে, ক্যাম্বোডিয়া ২০১৮ সালে ১৩৭০ কোটি মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য বিদেশ থেকে আমদানি করেছে, যা আগের বছরের চেয়ে ৫.৭ শতাংশ বেশি।

উল্লেখ্য, ইউরোপীয় দেশগুলো, যুক্তরাষ্ট্র, চীন, দক্ষিণ কোরিয়া, জাপান, থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম, সিঙ্গাপুর ও মালয়েশিয়া হচ্ছে ক্যাম্বোডিয়ার প্রধান বাণিজ্যিক অংশীদার।

৮. রাশিয়ার অর্থনীতি আগামী বছরের (২০১৯) শুরুতে কঠিন সময় অতিক্রম করবে। তবে বছরশেষে দেশটির অর্থনীতিতে ১.৩ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জিত হতে পারে। সম্প্রতি দেশটির অর্থনৈতিক উন্নয়নমন্ত্রী ম্যাক্সিম ওরেশকিন সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, নতুন বছরের শুরুতে সবচেয়ে কঠিন সময় আসবে। তবে বছরের দ্বিতীয়ার্ধ থেকে অর্থনীতিতে সুবাতাস বইতে শুরু করবে এবং বছরশেষে অর্থনীতিতে ১.৩ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জিত হতে পারে। দেশে ও দেশের বাইরে রাশিয়ার অর্থনীতিকে বেশ কয়েকটি চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হবে বলেও জানান তিনি।

এদিকে, সম্প্রতি রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বার্ষিক প্রেস কনফারেন্সে বলেছেন, ২০১৮ সালে দেশে জিডিপি প্রবৃদ্ধি অর্জিত হবে ১.৮ শতাংশ এবং ২০২১ সাল থেকে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৩ শতাংশ ছাড়িয়ে যাবে।

৯. চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের জুলাই থেকে নভেম্বর পর্যন্ত পাঁচ মাসে প্রকল্পসহায়তা হিসেবে ঋণ ও অনুদান মিলে উন্নয়ন-সহযোগীদের কাছ থেকে রেকর্ড পরিমাণ প্রায় ১৮৭ কোটি মার্কিন ডলার ছাড় পেয়েছে বাংলাদেশ, যা গত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের একই সময়ের চেয়ে ১৬ কোটি ডলার বেশি। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ (ইআরডি)-র হালনাগাদ প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

এ বিষয়ে ইআরডি'র যুগ্মসচিব মো. রুহুল আমিন বিডিনিউজকে বলেন, "গত অর্থবছরে আমরা দেশের ইতিহাসের রেকর্ড প্রায় ৬.৩ বিলিয়ন ডলারের বৈদেশিক মুদ্রা ছাড় করতে সক্ষম হয়েছিলাম। এবার প্রথম পাঁচ মাসে গত অর্থবছরের একই সময়ের তুলনায় বেশি ছাড় হয়েছে।"

এদিকে, চলতি অর্থবছরের প্রথম ৫ মাসে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির ২০ শতাংশ বা ৩২ হাজার ৯৯৭ কোটি টাকা ব্যয় করা সম্ভব হয়েছে। এটা গত অর্থবছরের একই সময়ের চেয়ে প্রায় সাড়ে তিন হাজার কোটি টাকা বেশি।

ইআরডি'র সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা জানান, অর্থবছরের নভেম্বর পর্যন্ত পাঁচ মাসে ঋণ হিসেবে ছাড় হয়েছে ১৮১ কোটি ১৩ লাখ মার্কিন ডলার এবং অনুদান হিসেবে ছাড় হয়েছে প্রায় ৬ কোটি ডলার। চলতি অর্থবছরের জন্য সরকারের ৭০০ কোটি মার্কিন ডলারের বেশি বৈদেশিক মুদ্রা ছাড়ের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।

১০. বাংলাদেশে সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনে ১৮ কোটি মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করবে জুলস পাওয়ার লিমিটেড (জেপিএল) নামের একটি প্রতিষ্ঠান। ১০০ মেগাওয়াট উৎপাদন-ক্ষমতার সৌরবিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্য জেপিএল চাঁদপুর অর্থনৈতিক অঞ্চলে ৫০০ একর জমি পাবে।

জমি ইজারা নিতে সম্প্রতি বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষ (বেজা)-র সঙ্গে একটি সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষর করে জেপিএল। এ নিয়ে বেজা চাঁদপুর অর্থনৈতিক অঞ্চলে তিনটি বড় বিনিয়োগ প্রস্তাব পেল। সবকটিই সৌরবিদ্যুৎ উৎপাদনের প্রকল্প। প্রায় চার হাজার একর আয়তনের চাঁদপুর অর্থনৈতিক অঞ্চলটি বিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্যই প্রতিষ্ঠা করা হচ্ছে। এটি হবে চাঁদপুরের উত্তর মতলবে।

এদিকে, জেপিএলের বিনিয়োগে কক্সবাজারের টেকনাফে ২০ মেগাওয়াট ক্ষমতার একটি সৌরবিদ্যুৎকেন্দ্র গত সেপ্টেম্বরে চালু হয়। এটি বাংলাদেশের একমাত্র সৌরবিদ্যুৎ প্রকল্প, যা বর্তমানে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ দিচ্ছে।

১১. বাংলাদেশে ক্রমেই বাড়ছে প্লাস্টিক পণ্যের বহুমুখী ব্যবহার। অভ্যন্তরীণ বিপুল চাহিদা মিটিয়ে বর্তমানে এ পণ্য বিদেশেও রফতানি হচ্ছে। চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের প্রথম ৫ মাসে (জুলাই-নভেম্বর) আন্তর্জাতিক বাজারে প্লাস্টিক পণ্য রফতানি করে বাংলাদেশ আয় করেছে ৪ কোটি ৮৭ লাখ মার্কিন ডলার, যা বিগত ২০১৭-১৮ অর্থবছরের একইসময়ের আয়ের চেয়ে ৩০ শতাংশ বেশি। চলতি অর্থবছরে ১০ কোটি মার্কিন ডলারের প্লাস্টিক পণ্য রফতানির লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।

বিশ্বের প্লাস্টিক পণ্যের এক ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলারের বাজার রয়েছে। এই বিশাল বাজারে বাংলাদেশি পণ্যের চাহিদাও কম নয়। গত কয়েক বছর ধরে এই খাতে রফতানি আয় দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। গত ২০১৭-১৮ অর্থবছরে প্লাস্টিক পণ্য রফতানি করে বাংলাদেশ আয় করে ৯ কোটি ৮৪ লাখ ডলার। যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি, ফ্রান্স, পোল্যান্ড, স্পেন, কানাডাসহ বিশ্বের ২৩ দেশে সরাসরি যাচ্ছে বাংলাদেশের প্লাস্টিক পণ্য।

১২. দক্ষিণ এশিয়ায় রেমিট্যান্স পাঠাতে এখনও বিশ্বের যে-কোনো জায়গার চেয়ে কম খরচ বহন করতে হয় সংশ্লিষ্ট প্রবাসীদের। তবে সম্প্রতি এই খরচ বেড়েছে। ২০১৭ সালের তৃতীয় প্রান্তিকে রেমিট্যান্স পাঠাতে তাদেরকে যেখানে মোট অর্থের ৫.২ শতাংশ খরচ করতে হয়েছে, সেখানে চলতি বছরের তৃতীয় প্রান্তিকে এই খরচ বৃদ্ধি পেয়ে ৫.৪ শতাংশে দাঁড়িয়েছে।

এদিকে, বিশ্বব্যাংক এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে, নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোতে চলতি বছর ৫২৮০০ কোটি মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স আসতে পারে, ২০১৭ সালের তুলনায় যা ১০.৮ শতাংশ বেশি।

ওদিকে, বাংলাদেশে চলতি বছরের নভেম্বর মাসে আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় রেমিট্যান্স এসেছে ৩ শতাংশ কম। নভেম্বর মাসে ১১৭ কোটি ৮৩ লাখ মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স পাঠিয়েছেন প্রবাসী বাংলাদেশিরা, যা গত বছরের একই সময়ে ছিল ১২১ কোটি ৪৮ লাখ ডলার।

আর বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রকাশিত তথ্যানুসারে, চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের জুলাই-নভেম্বর সময়কালে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে প্রবাসী বাংলাদেশিরা ৬২৮ কোটি ৬৩ লাখ মার্কিন ডলার পাঠিয়েছেন।

 (আলিমুল হক)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040