Web bengali.cri.cn   
'রাতের শাংহাই'
  2018-08-10 15:47:04  cri



বন্ধুরা, গত সপ্তাহে আমি আপনাদেরকে চীনের তাইওয়ানের কন্ঠশিল্পী ছাই ছিন'র সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিয়েছি। আজকের অনুষ্ঠানে আমি তাঁর কন্ঠে কয়েকটি গান আপনাদের শোনাবো। প্রথমে 'মাংস চংচি' নামের গান শোনাবো। এটি চীনের তাইওয়ানের স্থানীয় আঞ্চলিক ভাষার লোকগান। প্রথমে গেয়েছেন দেং লি জুন। চলুন, আমরা একসঙ্গে ছাই ছিন'র কন্ঠে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন ছাই ছিন'র কন্ঠে 'মাংস চংচি' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'রাতের শাংহাই' নামের গান শোনাবো। এটি একটি পুরাতন গান। গানটি ১৯৪৭ সালে রিলিজ হয়। তখন গণপ্রজাতন্ত্রী চীন গড়ে তোলা হয়নি। শাংহাই কুও মিন তাং পার্টির প্রশাসনে ছিল। গানটি সে-বছরে মুক্তি-পাওয়া হংকংয়ের একটি চলচ্চিত্রের থিম সং। চীনের অনেক বিখ্যাত কন্ঠশিল্পী গানটি পরবর্তী কালে গেয়েছেন। কিন্তু ছাই ছিন'র কন্ঠে এটি বেশি মধুর লাগে। সেজন্য তাঁর কন্ঠে গানটি এখনো চীনে খুবই জনপ্রিয়। চলুন, আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন ছাই ছিন'র কন্ঠে 'রাতের শাংহাই' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'কেমব্রিজ, তোমাকে বিদায' নামের গান। গানটির কথা আসলে চীনের আধুনিক কালের বিখ্যাত কবি স্যু চি মো'র লেখা। তিনি কবিতাটি ১৯২৮ সালে লিখেছেন। কবিতার ভাষা এমন: খুব শান্তভাবে আমি আমার ছুটি নিয়ে যাচ্ছি/শান্তভাবে এখানে এসেছি/শান্তভাবে আমি ভালভাবে বিদায় নিচ্ছি/পশ্চিম আকাশে শুভ মেঘ, নদীর জলে উইলসের ছায়া/ডুবন্ত সূর্য যেন তরুণ বর/এসবের প্রতিচ্ছবি সর্বদা আমার হৃদয়ের গভীরে/স্রোতের উপর ভাসমান হৃদয় ক্রমবর্ধমান জলের অধীন/ ক্যামব্রিজের মৃদু তরঙ্গে আমি একটি জলজ উদ্ভিদ হব!/ একটি স্বপ্ন খোঁজার জন্য/ একটি নৌকা থেকে ভেসে আসে জোরে-জোরে গাওয়া গানের শব্দ ও সুর/কিন্তু আমি জোরে জোরে গান গাইতে পারি না, শান্তি আমার বিদায়-সঙ্গীত/এমনকি গ্রীষ্মকালীন কীটপতঙ্গগুলি আমার জন্য নীরবতা পালন করছে, আজ সন্ধ্যার ক্যামব্রিজে!/ খুব শান্তভাবে আমি আমার ছুটি নিয়ে যাচ্ছি/শান্তভাবে এখানে এসেছি/ আমি আমার ভিতরে কোনও আকাঙ্ক্ষাও পোষণ করবো না। চলুন, আমরা একসঙ্গে ছাই ছিন'র কন্ঠে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন ছাই ছিন'র কন্ঠে 'কেমব্রিজ, তোমাকে বিদায' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'রূপালী চাঁদের আলোয়' নামের গান শোনাবো। এটি চীনের সিনচিয়াংয়ের তাতার জাতির লোকগান। গানের সুর নেওয়া হয়েছে রাশিয়ার লোকসংগীত থেকে। ১৯৩৮ সালে চীনের বিখ্যাত সুরকার ওয়াং লুও বিং গানের কথা লিখেছেন। চলুন, আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন ছাই ছিন'র কন্ঠে কয়েকটি গান। এখন আমি আপনাদেরকে চৌ ছুয়ান স্যিয়ংয়ের সঙ্গে পরিচয় করাবো। তিনি ১৯৬৯ সালের ৭ জুন চীনের তাইওয়ানের তাইচং শহরে জন্মগ্রহণ করেন। কিন্তু তাঁর পূর্বপুরুষের বাড়ি হুপেই প্রদেশের চিনচৌ শহরের কংআন জেলা। তিনি একজন কন্ঠশিল্পী ও সংগীত-প্রযোজক। তিনি ১৯৯৮ সালে 'তাইওয়ানের বিদ্যালয় সংগীত প্রতিযোগিতা'-য় অংশ নেন। ১৯৮৯ সালে তিনি নিজের প্রথম সংগীত প্রকাশ করেন। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'নীল তুরস্ক' নামের গান শোনাবো। গানটি ২০০৭ সালে রিলিজ হয়। চলুন, আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

বন্ধুরা, শুনছিলেন চৌ ছুয়ান স্যিয়ংয়ের কন্ঠে 'নীল তুরস্ক' নামের গান। ১৯৯০ সালে তিনি নিজের প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ১৯৯২ সালে তিনি চতুর্থ অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ১৯৯৬ সালে তিনি নিজের অষ্টম অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ১৯৯৭ সালে তিনি ব্রিটেনে গিয়ে শিক্ষকতা শুরু করেন। ২০০১ সালে তিনি টিভি সিরিজে অভিনয় করেন। ২০০৪ সালে তিনি সিঙ্গাপুরে নিজের কনসার্ট আয়োজন করেন। ২০০৫ সালে তিনি একাদশ অ্যালবাম প্রকাশ করেন। তিনি সংগীতজগতে বেশকিছু পুরস্কার লাভ করেন। এখন আমি আপনাদেরকে তাঁর কন্ঠে 'কোন গানে তুমি আমাকে স্মরণ করবে?' চলুন, আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

প্রিয় শ্রোতা, এতক্ষণ আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের সবাইকে জানাই অসংখ্য ধন্যবাদ। যদি আমাদের অনুষ্ঠানে আপনারা কোনো পছন্দের গান শুনতে চান, তাহলে জানাবেন। আমাদের ই-মেইল ঠিকানা ben@cri.com.cn। আর আমার নিজস্ব ইমেইল ঠিকানা caiyue@cri.com.cn। 'গানের অনুরোধ' আমার নিজস্ব ই-মেইল ঠিকানায় পাঠালে ভালো হয়। আজ তাহলে এ পর্যন্তই। আশা করি, আগামী সপ্তাহের একই দিন, একই সময়ে আবারও আপনাদের সঙ্গে কথা হবে। সে পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন, আনন্দে থাকুন। চাই চিয়ান। (ছাই/আলিম)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040