Web bengali.cri.cn   
সুরের ধারায়-'মন হারিয়েছে'
  2018-05-16 16:23:45  cri


প্রিয় শ্রোতা বন্ধুরা, আপনারা কেমন আছেন? বেইজিং থেকে প্রচারিত চীন আন্তর্জাতিক বেতারের বাংলা অনুষ্ঠান 'সুরের ধারায়' আপনাদের সবাইকে আন্তরিক প্রীতি ও শুভেচ্ছা জানাচ্ছি আমি শুয়েইফেইফেই।

প্রতি সপ্তাহের এই সময় আমার কাছে খুব আনন্দের এবং সৌভাগ্যের। কারণ এই সময় আপনাদের সঙ্গে সঙ্গীতের মাধ্যমে মনের কথা ভাগাভাগি করে নিতে পারি। যদিও চীন এবং বাংলাদেশের মধ্যে ভৌগলিক দূরত্ব যথেষ্ট, তবে সঙ্গীতের কোনো সীমানা নেই, আপনাদের সঙ্গে সুন্দর গান শুনতে শুনতে যেন আমি আপনাদের সাথেই আছি, তা আমার জন্য খুব সুন্দর মুহূর্ত।

আচ্ছা, আপনারা কি প্রস্তুত? চলুন তাহলে, আমার সঙ্গে; প্রবেশ করুন সঙ্গীতের দুনিয়ায়।

বন্ধুরা, আজকের অনুষ্ঠানে আপনাদের চীনের বিখ্যাত ও সবচেয়ে জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী ফেই ওয়াং-এর গাওয়া কয়েকটি সুন্দর গান শোনাবো, আশা করি গানগুলো আপনাদের ভালো লাগবে।

প্রথমে শুনুন 'দু'জনের বাইবেল' শিরোনামে একটি প্রেমের গান।(১)

বন্ধুরা, এখন শুনুন ফেই ওয়াং-এর গাওয়া আরেকটি মধুর গান, গানের শিরোনাম 'একমুখী রাস্তা'। বন্ধুরা, ফেই ওয়াং ১৯৯৯ সালে 'আইজ অন মি' শিরোনামে একটি ইংরেজী গান নিয়ে জাপানের ৪১তম এ্যালবাম পুরস্কারের 'এশিয়া সঙ্গীত' পুরস্কার লাভ করেন। একই বছর তিনি জাপানেও নিজের সঙ্গীতানুষ্ঠান আয়োজন করেন। বোঝা যায়, তখন থেকে চীনসহ সারা এশিয়ায় ফেই ওয়াং জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন। আচ্ছা, এখন শুনুন গানটি। (২)

বন্ধুরা, এখন শুনুন ফেই ওয়াং-এর গাওয়া 'মন হারিয়েছে' শিরোনামে একটি গান। বন্ধুরা, আপনারা কি জানেন, ২০০২ সালে ফেই ওয়াং গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস কর্তৃপক্ষের প্রদান করা 'বিশ্বে সবচেয়ে বেশি ক্যান্টোনিজ অ্যালবাম বিক্রি করার গায়িকা' পুরস্কার লাভ করেছেন। তখন রাস্তায় যে কোনো স্থানে শোনা যেত তাঁর গান। তাকে চীনের সবচেয়ে জনপ্রিয় গায়িকা বলা যায়। (৩)

বন্ধুরা, ছোটবেলা থেকেই ফেই ওয়াং-এর মধ্যে সঙ্গীত প্রতিভা দেখা যায়। ১৯৮০ সালে তিনি চীনের কেন্দ্রীয় টেলিভিশন-সিসিটিভি'র শিশু দলে প্রবেশ করেন। তখন থেকে তিনি নিয়মিত সিসিটিভির অনুষ্ঠানে পরিবেশনা করতেন। ১৯৮৭ সালে তিনি সিয়ামেন বিশ্ববিদ্যালয়ের জীব বিজ্ঞান বিভাগের ভর্তি ত্যাগ করে মা বাবার সঙ্গে হংকংয়ে চলে যান। এখন শুনুন তাঁর গাওয়া 'উড়া' শিরোনামে গান।

বন্ধুরা, এখুন শুনুন ফেই ওয়াং-এর গান 'ঘুম নেই'। ১৯৮৯ সালে তিনি একটি সংগীত প্রতিযোগিতায় তৃতীয় স্থান অধিকার করেন। এরপর তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে সংগীত জগতে প্রবেশ করেন। তাঁর সংগীতের নিজস্ব বৈশিষ্ট্য আছে। তিনি এ পর্যন্ত ৩০টিরও বেশি অ্যালবাম প্রকাশ করেছেন। এছাড়া, তিনি একজন অভিনেত্রী হিসেবেও বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় পুরস্কার লাভ করেন।(৫)

বন্ধুরা, এখন শুনুন ফেই ওয়াং-এর গান 'মনের পথ'। ২০০৫ সালের মার্চ মাসে ফোর্বস ম্যাগাজিনের প্রকাশিত বিখ্যাত চীনা মানুষের তালিকায় তিনি পঞ্চম অবস্থান অর্জন করেন। এ বছরের মে মাস থেকে তিনি ধীরে ধীরে সংগীতাঙ্গনে কাজ কমিয়ে দেন। কিন্তু তাঁর গান এখনো সারা চীন এমনকি দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় জনপ্রিয়।

বন্ধুরা, এখুন শুনুন ফেই ওয়াং-এর গাওয়া আরেকটি গান, গানের শিরোনাম 'রানীর নতুন কাপড়'। ওয়াং ফেইকে চীনা ভাষার সংগীত জগতে একজন কিংবদন্তি বলা যায়। তিনি গত শতাব্দীর নবম দশক থেকে সারা চীন, এমনকি পূর্ব এশিয়ায় খুবই জনপ্রিয় হন। এখনও তাঁর কন্ঠের সব গান খুবই জনপ্রিয়।(৭)

বন্ধুরা, ফেই ওয়াং-এর মধুর কন্ঠের সঙ্গে আজকের সঙ্গীতানুষ্ঠান শেষ হল। শেষ করার আগে আপনাদের আরেকটি গান শোনাবো, 'লাল জুতা'র পিয়ানো সংস্কারণ। আশা করি গানটি আপনাদের ভালো লাগবে। (৮)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040