Web bengali.cri.cn   
নীল আকাশে সাদা মেঘ আছে
  2017-08-25 09:35:29  cri



বন্ধুরা, আজকের অনুষ্ঠানে আমি আপনাদেরকে কয়েকটি মজার চীনা গান শোনাবো। প্রথমে দা চাং ওয়েই'র কণ্ঠে 'ঘুরে খাই' নামের গান শোনাবো। দা চাং ওয়েই'র আসল নাম চাং ওয়েই। তিনি ১৯৮৩ সালের ৩১ অগাস্ট বেইজিংয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি একজন কণ্ঠশিল্পী, সঙ্গীত প্রয়োজক, অভিনেতা ও উপস্থাপক। তিনি ১৯৯৮ সালের মে মাসে 'ফুল' নামের চীনের প্রথম অপ্রধান রক ব্যান্ড প্রতিষ্ঠা করেন। এ বছর তিনি মেধাবী কিশোরের মর্যাদা লাভ করেন। ২০০২ সালে তিনি চীনা ভাষার পপ সঙ্গীতে মিডিয়া পুরস্কার লাভ করেন। ২০০৬ সালে তার ব্যান্ড প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করে। কিন্তু ২০০৯ সালে তিনি এ ব্যান্ড আনুষ্ঠানিকভাবে বন্ধ করে দেন। ২০১২ সালে তিনি এক সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় সর্বশ্রেষ্ঠ নতুন শিল্পীর পুরস্কার লাভ করেন। ২০১৩ সাল থেকে তিনি টিভি উপস্থাপকের কাজ শুরু করেন।

টুটুল: চীনা 'গুয়াং' শব্দের অর্থ হল 'ঘুরে দেখা' বা 'শপিং করা'। 'চি' মানে খাওয়া। 'গুয়াংচি' মানে 'ঘুরে খাই'। 'ঘুরে খাই' গানের কথা এমন, 'ঘুরে খাই, ঘুরে খাই, ঘুরে খাই। বড় ঘড়ি দেখি, বড় ছুরি ধরি। নীল আকাশে সাদা মেঘ আছে, ঘুরে খাই, ঘুরে খাই। রেলওয়েই অতিক্রম করে লোহার সেতুতে দাঁড়াই। গর্ব নিয়ে বাঘ মাথা তুলে হাসে, কঠিন অবস্থায় গান রচনা করে'। মার্জিত, মার্জিত, মার্জিত। এত মার্জিত, কত মার্জিত। ইয়াহ, মার্জিত'! আচ্ছা, বন্ধুরা, এখন আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

(গান ১)

মুক্তা: বন্ধুরা, শুনছিলেন দা চাং ওয়েই'র কণ্ঠে 'ঘুরে খাই' নামের গান। এখন আমি আপনাদেরকে দেং ছাও'র কণ্ঠে 'সুপার হিরো' নামের গান শোনাবো। দেং ছাও ১৯৭৯ সালে চীনের চিয়াংসি প্রদেশের নানছাং শহরে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি একজন অভিনেত্রী, চলচ্চিত্র সম্পাদক, প্রযোজক ও ইন্টারনেট বিনিয়োগকারী। ১৯৯৮ সালে তিনি চীনের দ্য সেন্ট্রাল একাডেমি অব ড্রামাতে ভর্তি হন। ২০০২ সাল থেকে তিনি টিভি সিরিজে পরিবেশনা শুরু করেন। ২০০৬ সালে তিনি চলচ্চিত্রে পরিবেশনা করেন এবং এ চলচ্চিত্রের কারণে তিনি পুরস্কার লাভ করেন। এছাড়া, তিনি অনেক টিভি অনুষ্ঠানেও অংশ নেন।

টুটুল: 'সুপার হিরো' গানের কথা হল, 'ব্ল্যাক কফির স্বাদ অনেক গভীর। গরম আবহাওয়ায় সুন্দর স্বপ্ন দেখি। স্বপ্নে আমি রামধনুতে পরিণত হয়েছি। আমি দৌড়াতে পছন্দ করি। তুমি থাকলে পড়ে গেলেও শান্তি পাই আমি। সাহস নিয়ে স্বপ্ন বাস্তবায়নের চেষ্টা করি। প্রত্যেক সাধারণ মানুষেরও ছোট স্বপ্ন আছে। চলচ্চিত্রে সাধারণ জীবনের বিভিন্ন দৃশ্য উপস্থাপন করা যাবে না। আমি তোমার হাত ধরে বৃষ্টিতে রামধনুর অপেক্ষা করতে চাই। তুমি বলেছো, আমি তোমার সুপার হিরো। আমি তোমার কাছে একটি জোনাকি হতে চাই। যদি আমি তোমার সুপার হিরো হই, তাহলে তোমার জন্য এ ভালোবাসার গান গাইবো। আমি তোমার অহংকারী সুপার হিরো হতে চাই। আমি ঠিকই তোমার'। বন্ধুরা, এখন আমরা একসঙ্গে গানটি শুনবো।

(গান ২)

মুক্তা: আচ্ছা, বন্ধুরা শুনছিলেন দেং ছাও'র কণ্ঠে 'সুপার হিরো' গান। এখন আমি আপনাদেরকে 'দোকানদার লু'র ফ্রাই চিকেন' নামের গান শোনাবো। গেয়েছেন কণ্ঠশিল্পী লু হান। তিনি ১৯৯০ সালের ২০ এপ্রিল বেইজিংয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ছোটবেলায় টেবিলটেনিস ও ফুটবলের প্রতি খুব আগ্রহী ছিলেন। কিন্তু ২০০৮ সালে তিনি দক্ষিণ কোরিয়ায় লেখাপড়া শুরু করেন। দক্ষিণ কোরিয়ায় তিনি সঙ্গীত শেখা শুরু করেন। তখন থেকে তিনি আনুষ্ঠানিকভাবে সঙ্গীত জগতে প্রবেশ করেন। 'দোকানদার লু'র ফ্রাই চিকেন' নামের গানটি হল কেএফসি'র চীনে বিজ্ঞাপনের থিম গান। তিনি ২০১৬ সাল থেকে কেএফসি'র বিজ্ঞাপনে পরিবেশনা শুরু করেন।

টুটুল: 'দোকানদার লু'র ফ্রাই চিকেন' গানটির কথা হল, 'ফ্রাই চিকেন খেয়ে ফেলি, খেয়ে ফেলি, এক পাত্র ফ্রাই চিকেন খেয়ে ফেলি। সুন্দর ও আনন্দে খেয়ে ফেলি, সবকিছু খেয়ে ফেলি। বিভিন্ন স্বাদের ফ্রাই চিকেন খেয়ে ফেলি। সুস্বাদু চিকেন খাওয়ার মাধ্যমে আনন্দিত হবো আমি। সহজ, আনন্দ, কোনো দুঃখ নেই। এ স্বাদ কখনো ভুলে যেতে পারবো না। এ সুন্দর স্বাদ তোমার হাসির মত গরম'।

(গান ৩)

মুক্তা: আচ্ছা, বন্ধুরা এখন আমি আপনাদেরকে ওয়াং রং'র কণ্ঠে 'পাখির ছানা' শিরোনামে গান শোনাবো। তিনি ১৯৭৮ সালের ২৪ ডিসেম্বর শানসি প্রদেশে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা একজন নাটকের অভিনেতা এবং মা লোকগানশিল্পী। পারিবারিক পরিবেশের কারণেই তিনি ছোটবেলা থেকে বেহালা, পিয়ানো ও নাচ শেখা শুরু করেন। ১৫ বছর বয়সে তিনি ইংরেজি পপ গান গাওয়া শেখা শুরু করেন। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হন। তখন থেকে তিনি গিটার শেখা শুরু করেন এবং সঙ্গীত রচনা শুরু করেন। ২০০২ সালে তিনি নিজের প্রথম অ্যালবাম প্রকাশ করেন। ২০০৪ সালে তিনি দ্বিতীয় অ্যালবাম প্রকাশ করেন এবং এর মাধ্যমে সারা চীনে জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন। এরপর তিনি বিভিন্ন সঙ্গীত প্রতিযোগিতায় পুরস্কার লাভ করেন।

টুটুল: 'পাখির ছানা' গানটির কথা খুব সহজ, সরল ও সুন্দর। গানটির কথা এরকম, 'মুরগী, মুরগী, ডাকে প্রতি দিন। মুরগীর বাচ্চা, মুরগীর বাচ্চা, ডাকে প্রতি দিন। মোরগ মোরগ, ডাকে প্রতি দিন। কে আমার চাল চুরি করেছে'।। আচ্ছা, এখন আমরা একসঙ্গে এ মজার গানটি শুনবো।

(গান ৪)

মুক্তা: বন্ধুরা, শুনছিলেন 'পাখির ছানা' নামের একটি গান। আশা করি, সবাই গানটি পছন্দ করেছেন। আচ্ছা, আজকের অনুষ্ঠানে আমরা আপনাদেরকে চারটি চীনা গান শুনিয়েছি। এখন কয়েকটি বাংলা গান শোনাবো, কেমন?

(বাংলা গান)

টুটুল: প্রিয় শ্রোতা, এতক্ষণ আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য আপনাদের সবাইকে জানাই অসংখ্য ধন্যবাদ। যদি আপনারা আমাদের অনুষ্ঠানে কোনো পছন্দের গান শুনতে চান, তাহলে আমাদের জানাবেন। আমাদের ই-মেইল ঠিকানা হচ্ছে ben@cri.com.cn

মুক্তা: এবং আমার নিজস্ব ইমেইল ঠিকানা হলো caiyue@cri.com.cn। 'গানের অনুরোধ' সম্পর্কিত ইমেইল আমার নিজস্ব ইমেইল ঠিকানায় পাঠালে ভালো হয়।

টুটুল: আজ তাহলে এ পর্যন্তই। আশা করি, আগামী সপ্তাহের একই দিনে, একই সময়ে আবারো আপনাদের সঙ্গে কথা হবে। সে পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন, আনন্দে থাকুন।

মুক্তা/টুটুল: চাই চিয়ান। (ছাই/টুটুল)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040