Web bengali.cri.cn   
শীতপ্রধান অঞ্চলে বিশ্বের প্রথম দ্রুতগতির রেলপথ
  2017-07-11 15:19:52  cri

২০১২ সালের পহেলা ডিসেম্বর উদ্বোধন করা হয় চীনের 'হাতা' দ্রুতগতির রেলপথ। এটি শীতপ্রধান অঞ্চলে বিশ্বের প্রথম দ্রুতগতির রেলপথ। উদ্বোধন হওয়ার পর গত চার বছরে, এ রেলপথে দ্রুতগতির ট্রেন চলাচল করেছে ৩ লাখ ১০ হাজার বার। আর এসব ট্রেনে ভ্রমণ করেছেন ১৫ কোটি যাত্রী। আজকের 'সংবাদ পর্যালোচনা'য় থাকছে 'হাতা' রেলপথের কথা।

'হাতা' অবস্থিত চীনের সর্ব-উত্তরের শীতপ্রধান এলাকায়। এ রেলপথে শূন্য থেকে মাইনাস ৫০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় দ্রুতগতির ট্রেন অনায়াসে চলাচল করে। রেলপথটি উত্তরাঞ্চলে হেইলোংচিয়াং প্রদেশের হারবিন শহর থেকে দক্ষিণাঞ্চলে লিও নিং প্রদেশের তা লিয়েন শহর পর্যন্ত বিস্তৃত। রেলপথটি চীনের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের তিনটি প্রদেশ অতিক্রম করেছে। এ রেলপথটি উত্তর-পূর্বাঞ্চলের প্রধান শহরগুলোর মধ্যে যাতায়াতের সময় অনেক কমিয়ে দিয়েছে। জনগণ এখন অনেক কম সময়ে শহরগুলোর মধ্যে যাতায়াত করতে পারে।

শীতপ্রধান অঞ্চলে দ্রুতগতির রেলপথ নির্মাণ সহজ কাজ নয়। এর জন্য বিশেষ উন্নত প্রযুক্তি প্রয়োজন হয়। রেলপথ ও ট্রেনের নকশাও হতে হয় বিশেষ ধরনের। এ রেলপথ নির্মাণের সময় তুষারপাতের কথা বিবেচনায় রাখতে হয়েছে। রেলপথে তুষার জমে গেলে তা সরানোর প্রক্রিয়া কী হবে, সেটাও বিবেচনা করতে হয়েছে। রেলপথে এমন প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে যে, তুষার জমলেই তা স্বয়ংক্রিয়ভাবে গলে যাবে।

রেলপথের দুই-তৃতীয়াংশ উড়ালপথের উপর দিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছিল জমাট বরফ থেকে একে মুক্ত রাখতে। তাই রেলপথটি গেছে ১৬২টি উড়ালসেতুর উপর দিয়ে, যেগুলোর সম্মিলিত দৈর্ঘ্য হচ্ছে ৬৬৩ কিলোমিটার।

আগেই বলেছি, 'হাতা' বিশ্বের প্রথম দ্রুতগতির রেলপথ যেটি শীতপ্রধান অঞ্চলে স্থাপিত হয়েছে। শুরুর দিকে শীতকালে ট্রেন চলাচল নিরাপদ রাখতে, এর গতিবেগ নির্দিষ্ট সীমার মধ্যে রাখার বিধান করা হয়। শীতকালে এ রেলপথে তখন ট্রেন চলতো সর্বোচ্চ ঘন্টায় ২০০ কিলোমিটার এবং গরমকালে সর্বোচ্চ ঘন্টায় ৩০০ কিলোমিটার বেগে। তবে ২০১৫ সালের পহেলা ডিসেম্বর থেকে, ব্যবহৃত প্রযুক্তি সম্পর্কে নিশ্চিত হবার পর, শীতকালেও এ রেলপথে ট্রেনের গতিবেগ করা হয় ঘন্টায় সর্বোচ্চ ৩০০ কিলোমিটার। এ সিদ্ধান্তের পাশাপাশি রেলপথ বরাবর নেওয়া হয় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা। গত চার বছরে 'হাতা' রেলপথ দিয়ে যাতায়াতকারী যাত্রীসংখ্যা প্রতিবছর বেড়েছে।

চীনের আঞ্চলিক অর্থনীতির উন্নয়নে রেলপথ বরাবরই বিশাল ভূমিকা পালন করে আসছে। বিশেষ করে চীনের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের অর্থনীতি নির্ভর করে দ্রুতগতির রেলপথের উপর। এর মধ্যে 'হাতা' রেলপথ যেন এতদঞ্চলের অর্থনীতের মূল চালিকাশক্তি। হাতা রেলপথ গত প্রায় ১০০ বছর ধরে উন্নত থেকে উন্নততর হয়েছে। শুরুর দিকে এ রেলপথে ঘন্টায় সর্বোচ্চ ৩০ কিলোমিটার বেগে ট্রেন চলতো। তারপর ধীরে ধীরে সেই গতি বাড়তে বাড়তে ঘন্টায় ৩০০ কিলোমিটারে পৌঁছেছে। উত্তর-পূর্বাঞ্চলের অর্থনীতিতে দ্রুতগতির রেলের প্রভাব সম্পর্কে চীনের সামাজিক বিজ্ঞান একাডেমির কর্মকর্তা সুই সি ইয়েন বলেন,

"হাতা রেলপথকে কেন্দ্র করে উত্তর-পূর্বাঞ্চলে গড়ে উঠতে পারে 'হাতা অর্থনৈতিক করিডোর'। হাতা রেলপথকে কেন্দ্র করে সংশ্লিষ্ট শহরগুলোর শিল্প খাত যেমন আরও উন্নত হতে পারে, তেমনি এ সব শহরের পর্যটনশিল্পও আরও শক্তিশালী হতে পারে।" (লিলি/আলিম)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040