Web bengali.cri.cn   
আর্জিন্টিনায় পরিবেশবান্ধব পর্যটন এবং মোরিনো হিমবাহ
  2017-02-10 14:59:07  cri

আর্জেন্টিনা চীনা পর্যটকদের জন্য সম্প্রতি ভিসানীতি সহজতর করার পর দেশটির বিখ্যাত মোরিনো হিমবাহে চীনা পর্যটকদের ভিড় বেড়ে যায়। আর্জেন্টাইন সরকার সাম্প্রতিককালে পরিবেশবান্ধব পর্যটননীতি গ্রহণ করেছে। এতে দেশের পর্যটনশিল্পে যেমন উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে, তেমনি পরিবেশ সুরক্ষার কাজটিও ঠিকঠাকমতো চলছে। আজকের 'মুক্তার কথা' আসরের শুরুতে আমরা শ্রোতাদের পরিচয় করিয়ে দেব বিখ্যাত মোরিনো হিমবাহের সঙ্গে।

দক্ষিণ আমেরিকা মহাদেশের আন্দেস পর্বতমালা ও আর্জেন্টিনার দক্ষিণাঞ্চলের পাটাগোনিয়া মালভূমিতে প্রায় ৩শ ছোট-বড় হিমবাহ রয়েছে। এর মধ্যে মোরিনো সবচেয়ে বিখ্যাত। মোরিনো হিমবাহ আনুমানিক ২ লাখ বছর আগে গঠিত হয় এবং এটি বিশ্বের বৃহত্তম হিমবাহ। এ ছাড়া, মোরিনো হিমবাহে উত্তর ও দক্ষিণ মেরুর পর বিশ্বের তৃতীয় বৃহত্তম মিঠা পানির মজুদ রয়েছে।

মানবজাতি ১৮৭৯ সালে মোরিনো হিমবাহ আবিষ্কার করে এবং আর্জেন্টিনার বিখ্যাত্ প্রকৃতিবাদী ফ্রান্সিস্কো মোরিনোর নামে এর নামকরণ করা হয়। ১৯৪৫ সালে আর্জেন্টিনা মোরিনো হিমবাহকে কেন্দ্র করে 'জাতীয় হিমবাহ পার্ক' নির্মাণ করে। পার্কটির মোট আয়তন ৪৪৫৯ বর্গকিলোমিটার। ১৯৮১ সালে জাতিসংঘের ইউনেস্কো পার্কটিকে বিশ্বের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য হিসেবে ঘোষণা করে। পার্কের একজন দায়িত্বশীল কর্মকর্তা বলেন, 'বিশ্ববিখ্যাত মোরিনো হিমবাহ আর্জেন্টিনা জাতীয় পার্কের মধ্যে অবস্থিত। ১৯৩৭ সালে আর্জেন্টিনা সরকার মোরিনো হিমবাহকে সুরক্ষিত প্রাকৃতিক অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করে এবং একে সুরক্ষিত জাতীয় পার্কের অন্তর্ভুক্ত করে। এর লক্ষ্য ছিল বিশ্বের এই বৃহত্তম হিমবাহসহ কাছাকাছি অবস্থিত অন্য ছোট হিমবাহ ও এতদঞ্চলের পশু ও উদ্ভিদকে রক্ষা করা।'

মোরিনো হিমবাহ আর্জেন্টিনার অসংখ্য প্রাকৃতিক সম্পদের একটি। আর্জেন্টিনার আয়তন ২৭.৮ লাখ বর্গকিলোমিটারেরও বেশি। দেশটি গ্রীষ্মপ্রধান ও নাতিশীতোষ্ণ। দেশটিতে অত্যুচ্চ আন্দেস পর্বতমালা ও ঠান্ডা পাটাগোনিয়া মালভূমি এবং আমাজন রেইন ফরেস্ট ও উর্বর পামপাস তৃণভূমি রয়েছে। দেশের সমৃদ্ধ প্রাকৃতিক সম্পদ ও পরিবেশ সুরক্ষার জন্য গত শতাব্দীর প্রথম দিকে আর্জেন্টিনা জাতীয় পার্ক নির্মাণ শুরু করে। ১৯০৩ সালে প্রতি বছরের ৬ নভেম্বর জাতীয় পার্ক দিবস পালনের সিদ্ধান্ত হয়। ১৯৩৪ সালে আর্জেন্টিনার প্রথম জাতীয় পার্ক খোলা হয় এবং জাতীয় পার্ক পরিচালনা কমিশন গঠিত হয়। এ পর্যন্ত আর্জেন্টিনায় জাতীয় পার্ক নির্মাণ ও প্রাকৃতিক পরিবেশ সুরক্ষার লক্ষ্যে শতাধিক নীতি ও আইন করা হয়েছে। জাতীয় পার্ক পরিচালনা কমিশনের ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, 'আর্জেন্টিনার পুর্ণাঙ্গ জাতীয় পার্কব্যবস্থা আছে। বর্তমানে এ ব্যবস্থায় ২৪টি পার্ক অন্তর্ভুক্ত। এ ছাড়াও, বহুমুখী প্রাকৃতিক পরিবেশ রক্ষা অঞ্চল, বিলুপ্তপ্রায় জন্তু ও উদ্ভিদ রক্ষা অঞ্চল, মানবজাতির সংস্কৃতি ও প্রাকৃতিক উত্তরাধিকার রক্ষা অঞ্চল এবং অনেক প্রাদেশিক পর্যায়ের প্রাকৃতিক রক্ষা অঞ্চলও রয়েছে। পাশাপাশি কোনো কোনো পার্কের আয়তন বাড়ছে এবং কোনো কোনো অঞ্চল নতুন জাতীয় পার্ক ও সুরক্ষিত প্রাকৃতিক অঞ্চল গঠনের জন্য আবেদন জানাছে।'

পরিসংখ্যান অনুসারে, ২০১৬ সালের অক্টোবর পর্যন্ত দুই শতাধিক প্রাদেশিক পর্যায়ের প্রাকৃতিক পার্ক ও পরিবেশ সুরক্ষা অঞ্চলসহ আর্জেন্টিনায় মোট পার্কের আয়তন মোট ভূখন্ডের ৭ শতাংশ।

আর্জেন্টিনার জাতীয় পার্ক পরিচালনার অর্থ আসে তিন জায়গা থেকে। দেশটির ফেডারেল সরকার ব্যয়ের ৫৮ শতাংশের যোগান দেয়। ৩৭ শতাংশ অর্থ আসে পার্কের টিকিট ও সেবা বিক্রি করে।

ফেডারেল সরকার সরাসরি পার্কের উন্নয়ন ও রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব পালন করে। ফেডারেল সরকার স্থানীয় অবকাঠামো ব্যবস্থা ও পর্যটন-ব্যবস্থাও পরিচালনা করে। বর্তমান হিমবাহ জাতীয় পার্ক আর্জেন্টিনার দশটি শ্রেষ্ঠ জনপ্রিয় পর্যটন স্থানের একটি। প্রতিবছর পার্কে আসা পর্যটকের সংখ্যা আর্জেন্টিনার মোট পর্যটকের ১০ শতাংশেরও বেশি। বর্তমানে পার্কে ৩০টিরও বেশি বিভিন্ন ধরনের পর্যটনপ্রকল্প রয়েছে। পর্যটকরা জাহাজে চেপে অনেক কাছ থেকে মোরিনো হিমবাহ দেখতে পারেন, বরফের উপর দিয়ে হাঁটতে পারেন, স্কি করতে পারেন, এবং ছোট বিমানে চড়ে আকাশ থেকে হিমবাহের সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারেন।

আর্জেন্টিনায় পর্যটকের সংখ্যা বাড়ছে। বিশেষ করে মোরিনো হিমবাহ দেখতে আগ্রহী পর্যটকের সংখ্যা ক্রমশ বাড়ছে। কিন্ত সরকার প্রাকৃতিক পরিবেশ সুরক্ষার ব্যাপারে সচেতন। হিমবাহের একজন কর্মকর্তা বলেন, 'জাতীয় পার্কের পরিচালনা গ্রুপ শুধু যে পার্ক পরিচালনা করে তা নয়, বরং প্রাকৃতিক সম্পদ সুরক্ষার জন্য গবেষণা করে, পর্যটকদের গাইড করে, এবং পর্যটন এজেন্সিগুলোর সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখে। জাতীয় হিমবাহ পার্কে একদল কর্মকর্তা প্রতিদিন এখানকার বন্যপ্রাণিদের ওপর পর্যটনের প্রভাব পর্যবেক্ষণ করেন। আরেকদল আছেন যারা প্রাকৃতিক পরিবেশের ওপর পর্যটনের ক্ষতিকর দিকগুলোর প্রতি নজর রাখেন এবং প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।'

আর্জেন্টিনা বরাবরই পার্ক পরিচালনা কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের ওপর গুরুত্ব দিযে থাকে। আর্জেন্টিনার অনেক জায়গায় জাতীয় পার্ক পরিচালনা কর্মকর্তাদের জন্য প্রশিক্ষণ একাডেমি রয়েছে। কোনো কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে জাতীয় পার্ক পরিচালনা বিভাগও রয়েছে।

আর্জেন্টিনার জাতীয় পার্ক-ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠিত হয়েছে ৮০ বছরেরও বেশি আগে। কিন্তু এই ব্যবস্থা উন্নয়নের কাজ অব্যাহত রেখেছে সরকার। আর্জেন্টিনার পার্ক পরিচালনা কমিশনের চেয়ারম্যান বলেন,'বর্তমান সরকার জাতীয় পার্ক-ব্যবস্থার ওপর আগের চেয়ে বেশি গুরুত্ব দেয়। প্রেসিডেন্ট মরিসিও মাক্রি আর্জেন্টিনার প্রাকৃতিক পরিবেশ সুরক্ষা-ব্যবস্থাকে বিশ্বমানে উন্নীত করার নির্দেশ দিয়েছেন। আমি বিশ্বাস করি, আগামী এক বছরে আর্জেন্টিনায় আরও জাতীয় পার্ক ও সুরক্ষিত প্রাকৃতিক এলাকা প্রতিষ্ঠিত হবে। এতে আমাদের পর্যটনশিল্পও উপকৃত হবে।'

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040