Web bengali.cri.cn   
চীনের ধন-সম্পদের দেবতার জন্মদিন
  2017-02-01 15:52:41  cri

আজ চীনের বসন্ত উত্সবের পঞ্চম দিন এবং এদিনটি বসন্ত উত্সবের গুরুত্বপূর্ণ একটি দিন। এদিন ভোর থেকে অর্থাত্ প্রায় সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে পটকা ফুটানো শুরু হয়, শুরু হয় বাড়ি পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করার কাজও ।

রীতি অনুযায়ী, বাসার ভেতর থেকে বাইরে গিয়ে পটকা ফুটানো শুরু করতে হয়, তার মানে বাড়িতে যে সব অশুভ শক্তি আছে তা তাড়িয়ে দেওয়া। আর ঠিক রান্না করার সময়ও উচ্চ শব্দ তৈরি করা হয়, যেমন জোর দিয়ে সবজি কাটা। তার মানে পটকা ফুটানোর মতো উচ্চ শব্দ তৈরি করে অশুভ শক্তি দূর করা ।

আজ চীনের ধন-সম্পদের দেবতার জন্মদিন! তাই প্রতিটি পরিবার নিজের বাড়িতে ধন-সম্পদের দেবতাকে অভ্যর্থনা জানায়।

এই ধন-সম্পদের দেবতাকে নিয়ে শাংহাইতে একটি ঐতিহ্য ছিলো। যেমন-বসন্ত উত্সবের চতুর্থ দিন অর্থাত্ ধন-সম্পদের দেবতার জন্মদিনের আগের দিন রাতে নৈবেদ্য, মিষ্টি ও ফুল প্রস্তুত করে ঘণ্টা এবং ড্রাম বাজিয়ে প্রার্থনা করা হতো। এভাবে তারা সবার আগে ধন-সম্পদের দেবতাকে নিজের বাড়িতে নিয়ে আসতে পারতো।

চীনের ঐতিহ্যিক গল্প অনুযায়ী, ধন-সম্পদের দেবতা হলেন আর্থিক সম্পদ ও এ বিষয়ে ভাগ্য নির্ধারণ করার দেবতা। আসলে চীনারা ৫ জন ধন-সম্পদের দেবতাকে পূজা করেন। তারা যথাক্রমে পূর্ব, পশ্চিম, দক্ষিণ, উত্তর ও মধ্য- এ ৫ দিকের আর্থিক সৌভাগ্য ব্যবস্থাপনা করেন। এর মধ্যে মধ্য ধন-সম্পদের দেবতা ওয়াং হাই ৬০ বছর বা তার চেয়ে বয়স্ক লোকদের আর্থিক সৌভাগ্য ব্যবস্থাপনা করেন। আর বাকি ৪ জন ৩০ বছর বা তার চেয়ে বেশি বয়সী লোকজনের আর্থিক সৌভাগ্য নির্ধারণ করেন।

চীন বিশাল একটি দেশ। এই দেশের ইতিহাসও অনেক দীর্ঘ। ধন-সম্পদের দেবতাকে নিয়েও দেশের বিভিন্ন জায়গায় রয়েছে নানান রকম গল্প। তাই এই দেবতাকে পূজা করা নিয়ে প্রতিটি জায়গার রীতিনীতিতে কিছু কিছু পার্থক্য রয়েছে।

তবে যেভাবেই ধন-সম্পদের দেবতার পূজা করা হোক না কেন আমাদের মন একই যে, আমরা নতুন বছরে আরও ধনী হতে চাই, বেশি টাকা আয় করতে চাই, চাই সুখ আর সমৃদ্ধিতে ভরপুর একটি জীবন।

চীনের বসন্ত উত্সবের আজকের এই দিনে সকল শ্রোতাবন্ধুকে শুভেচ্ছা'কুং সি ফা চাই' অর্থা, সবার জীবন সৌভাগ্যে ভরে উঠুক। (শিশির/টুটুল)

© China Radio International.CRI. All Rights Reserved.
16A Shijingshan Road, Beijing, China. 100040